32.8 C
Rajshahi
Saturday, December 5, 2020
Home মহানগর রামেক হাসপাতালকে কেন্দ্র করে হচ্ছে শব্দ দূষণমুক্ত ‘নীরব এলাকা

রামেক হাসপাতালকে কেন্দ্র করে হচ্ছে শব্দ দূষণমুক্ত ‘নীরব এলাকা

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন (রাসিক) এলাকায় একটি শব্দ দূষণমুক্ত ‘নীরব এলাকা’ হতে যাচ্ছে। ‘শব্দদূষণ নিয়ন্ত্রণে সমন্বিত ও অংশীদারিত্বমূলক প্রকল্প’ এর আওতায় রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন ও পরিবেশ অধিদপ্তর যৌথভাবে এই কার্যক্রম বাস্তবায়ন করবে। এই কার্যক্রম বাস্তবায়নের লক্ষ্যে গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে নগর ভবনে সচিব দপ্তরে এক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
সভায় জানানো হয়, রাসিকের মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন রাজশাহী মহানগরীকে একটি পরিচ্ছন্ন, উন্নত, পরিবেশসম্মত, আধুনিক ও বাসযোগ্য মহানগরী হিসেবে গড়তে কাজ করে যাচ্ছেন। ইতোমধ্যে পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতায় রাজশাহীর সুনাম দেশজুড়ে। বাতাসে ক্ষতিকারক ধূলিকণা কমানোয় বিশে^র সেরা শহর রাজশাহী।
সভায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসাপতালকে কেন্দ্র করে ঘোষপাড়া মোড় থেকে লক্ষীপুর, লক্ষীপুর মোড় থেকে সিএন্ডবি মোড়, লক্ষীপুর মোড় থেকে ঐতিহ্য চত্বর হয়ে রাজিব চত্বর ঘুরে ঘোষপাড়া মোড় পর্যন্ত এলাকাকে শব্দ দূষণমুক্ত ‘নীরব এলাকা’ হিসেবে প্রাথমিকভাবে চিহ্নিত করা হয়েছে। কার্যক্রমটি বাস্তবায়নে উক্ত এলাকায় ‘নীরব এলাকা’, হর্ণ বাজানো নিষেধ’ সতর্কীকরণ বিজ্ঞপ্তি সাইনবোর্ড স্থাপন, জনসচেতনা সৃষ্টি এবং ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হবে। আগামীতে আরেকটি সভা আহ্বান করে এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। কার্যক্রমটি বাস্তবায়িত হলে শিশু, বয়স্ক ও গর্ভবতী মহিলা এবং অসুস্থ্যরা শব্দ দূষণের ক্ষতিকর প্রভাব থেকে রক্ষা পাবেন।
সভায় রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের প্যানেল মেয়র-১ ও ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু, সচিব আবু হায়াত মো. রহমতুল্লাহ, পরিবেশ অধিদপ্তর রাজশাহী জেলা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মোহাম্মদ মনির হোসেন, পরিবেশ উন্নয়ন কর্মকর্তা সৈয়দ মাহমুদ-উল ইসলাম, সহকারী প্রকৌশলী আসিফুল হাবিব নিবিড় প্রমুখ আলোচনায় অংশ নেন।
উল্লেখ্য, শব্দদূষণ (নিয়ন্ত্রণ) বিধিমালা, ২০০৬ অনুসারে হাসপাতাল, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, অফিস-আদালত বা একই জাতীয় অন্য কোন প্রতিষ্ঠান এবং উহার চতুর্দিকের ১০০ মিটার পর্যন্ত বিস্তৃত এলাকা ‘নীরব এলাকা হিসাবে চিহ্নিত। বর্ণিত এলাকায় চলাচলকালে যানবাহনের কোন প্রকার হর্ণ বাজানো যাবে না। প্রত্যেক ইউনিয়ন পরিষদ, পৌরসভা, সিটি কর্পোরেশন, নগর কর্তৃপক্ষকে নিজ নিজ এলাকার মধ্যে আবাসিক, বাণিজ্যিক, মিশ্র, শিল্প বা নীরব এলাকাসমূহকে চিহ্নিত করে স্ট্যান্ডার্ড সংকেত বা সাইনবোর্ড স্থাপন ও সংরক্ষণ করতে হবে মর্মে বিধি রয়েছে। মুজিববর্ষ উদযাপন উপলক্ষ্যে পরিবেশ অধিদপ্তর শব্দ দূষণমুক্ত দেশ গড়ার প্রত্যয়ে উল্লিখিত বিধিমালা অনুযায়ী “শব্দদূষণ নিয়ন্ত্রণে সমন্বিত ও অংশীদারিত্বমূলক প্রকল্প” এর আওতায় প্রত্যেক বিভাগীয় শহরে এক বা একাধিক এলাকা/স্থানকে নীরব এলাকা ঘোষণার মাধ্যমে শব্দদূষণ রোধের উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। উক্ত প্রকল্পের আওতায় রাজশাহীতে ‘নীরব এলাকা’ চিহ্নিত কার্যক্রম বাস্তবায়ন হতে যাচ্ছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

মহিলা জাতীয় ফুটবল ফাইনালে রংপুর ও মাগুরা

মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতি স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত জেএফএ অনুর্ধ-১৪ মহিলা জাতীয় ফুটবল চ্যাম্পিয়নশীপের চুড়ান্ত পর্ব থেকে বিদায় স্বাগতিক রাজশাহী ও সফররত গাইবান্ধার। কাল সোমবার চ্যাম্পিয়নের...

ছুটির দিনে দুর্ঘটনায় ঝরল ২৬ প্রাণ

এফএনএস: ছুটির দিন গতকাল শুক্রবার সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত পৃথক দুর্ঘটনায় ২৬ জন নিহত হয়েছেন। এরমধ্যে সারাদেশে সড়ক দুর্ঘটনায় ২২ জন ও...

২নং ওয়ার্ডে প্রতিবন্ধীদের মাঝে অনুদান বিতরণ

আন্তর্জাতিক প্রতিবন্ধী দিবস উপলক্ষে এসডিডিবি প্রকল্পের আয়োজনে গত বৃহস্পতিবার সকালে নগরীর রাসিক ২নং ওয়ার্ড টলিপাড়া ক্লাব ঘরে প্রতিবন্ধী দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা...

থিম ওমর প্লাজায় ‘খিদমাহ’ শো-রুমের উদ্বোধন

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজশাহীর থিম ওমর প্লাজায় 'খিদমাহ' নামের একটি নতুন শো-রুমের উদ্বোধন হয়েছে। গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় শো-রুমটির উদ্বোধন করেন থিম...

Recent Comments